নিয়ম এবং প্রবিধান

১। অভ্যন্তরিণ পরীক্ষায় অনুপস্থিত থাকা দণ্ডনীয়। অসুস্থতার ক্ষেত্রে মেডিক্যাল সার্টিফিকেটসহ আবেদন করতে হবে।

২। সিনিয়র অথবা জুনিয়র সহপাঠির সঙ্গে চলাফেরায় ব্যাঙ্গাত্মক অনুকরণ বা প্যারোডি, কটু কথা বলা শারীরিকভাবে আঘাত করা ইত্যাদি জাতীয় অসদাচরণ করা যাবে না। শিক্ষার্থীদের পারস্পরিক আচরণ শ্রদ্ধাপূর্ণ ও শালীন হতে হবে। কোনক্রমেই মূল্যবোধের পরিপন্থি হওয়া যাবে না। প্রতিষ্ঠান চত্বরে অবাধ, অনৈতিক ও অশোভন মেলামেশা প্রতিষ্ঠানের শৃঙ্খলা বিরোধী অপরাধ হিসাবে বিবেচিত হবে।

৩। ক্লাসে যথাসময়ে উপস্থিত থাকতে হবে। অসুস্থতাজনিত অনুপস্থিতির জন্য মেডিক্যাল সার্টিফিকেটসহ আবেদন জমা দিতে হবে।

৪। প্রতিষ্ঠান চত্বরে, ক্লাসে কিংবা করিডোরে কোন অবস্থাতেই হৈচৈ বা উচ্চস্বরে কথা বলা যাবে না।

৫। ক্লাস সমাপ্তি বা ছুটির ঘন্টা বাজার পর ছাত্রীদের কে আগে ক্লাস থেকে বের হওয়ার সুযোগ দিতে হবে।

৬। ক্লাস চলাকালীন কোন অবস্থাতেই শিক্ষার্থীদের কে প্রতিষ্ঠান ত্যাগ করা যাবে না। জরুরী প্রয়োজনে কর্তৃপক্ষের পূর্বানুমতি সাপেক্ষে প্রতিষ্ঠান ত্যাগ করতে পারে।

৭। প্রতিষ্ঠান চত্বর ধূমপান মুক্ত এলাকা হিসাবে ঘোষিত, এখানে ধূমপান দণ্ডনীয় অপরাধ হিসেবে বিবেচিত হবে।

৮। শিক্ষার্থীদের প্রতিষ্ঠান ভবনের ছাদে ওঠা, করিডোরের রেলিং এ বসা সম্পূর্ণরূপে নিষিদ্ধ।

৯। রাস্তা সংক্ষিপ্ত করার লক্ষ্যে মাঠ ব্যবহার করা যাবে না। প্রাচীর ডিঙ্গিয়ে প্রতিষ্ঠানে প্রবেশ নিষিদ্ধ।

১০। ক্লাস রুম, করিডোর সর্বপরি প্রতিষ্ঠান চত্বর পরিস্কার পরিচ্ছন রাখার স্বার্থে অপ্রয়োজনীয় ও নোংরা দ্রব্যাদি নির্ধারিত ময়লার ঝুড়িতে ফেলতে হবে।

১১। প্রতিষ্ঠানের বাগানের ফুল ছেঁড়া নিষিদ্ধ।

১২। প্রতিষ্ঠান প্রপার্টির যেকোন মাত্রার ক্ষতিসাধন করা অমার্জনীয় অপরাধ।

১৩। প্রতিষ্ঠান দেয়ালে বা শ্রেণি কক্ষের বেঞ্চে কোন কিছু লেখা বা অংকন করা শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

১৪। মূল্যবান ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী এবং ছাত্রীদের দামী স্বর্ণালংকার ব্যবহার করা নিষিদ্ধ।

১৫। মেয়েদের কমন রুমে ছেলেরা এবং ছেলেদের কমন রুমে মেয়েদের প্রবেশ সম্পূর্ণরূপে নিষিদ্ধ।

১৬। ছাত্র-ছাত্রীদের মাদক সেবন, মাদক পরিবহন এবং মাদক গ্রহণে উৎসাহমূলক যে কোন কর্মকাণ্ড সম্পূর্ণরূপে নিষিদ্ধ।

১৭। শিক্ষার্থীদের প্রতিদিন পরিস্কার ইউনিফর্ম পরে আসতে হবে। ইউনিফর্ম পরে ক্লাসে আসা বাধ্যতামূলক।

১৮। কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া কোন অভিভাবকের শ্রেণিকক্ষে প্রবেশ নিষিদ্ধ। ক্লাস চলাকালীন প্রতিষ্ঠান ভবনের করিডোরে বসে থাকা এবং যত্রতত্র বিচরণ প্রতিষ্ঠানের ভাব-গাম্ভীর্য নষ্ট করে বিধায় তাদেরকে প্রয়োজনে ওয়েটিং রুমে বা শহিদমিনার চত্ত্বরে অপেক্ষা করতে হবে।